Blog71

আপনার দেওয়া পাসওয়ার্ড কতটা সুরক্ষিত জানেন ?

প্রিয় ব্লগ৭১ এর টিউনার এবং ভিজিটরগণ কেমন আছেন সবাই? আসাকরি ভালোই আছেন।আমার পোষ্টের বিষয় হচ্ছে আপনার দেওয়া পাসওয়ার্ড কতটা সুরক্ষিত ? পৃথিবীর অর্ধেকেরও বেশি মানুষ এখন ইন্টারনেটের আওতায়। বিশেষ করে সৌশাল নেটওয়ার্ক বেশি ব্যবহার করে থাকেন ইন্টারনেট ব্যবহারকারীরা।বেশিরভাগ ব্যবহারকারীদের আইডি সুরক্ষা দেওয়া থাকেনা ফলে তাহরে আইডিটি হ্যাং হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থেকে যায়।

আসুন জেনেনেই পাসওয়ার্ডের সুরক্ষায় যা যা করা অনুচিত-

 পরিচিত শব্দের ব্যবহার এড়িয়ে চলো উচিৎ :

অনেকেই পাসওয়ার্ড ব্যবহার ক্ষেত্রে পরিচিত শব্দ ব্যবহার করে থাকেন। যেমন- Dhaka, Pen, Book, 12345 ইত্যাদি ছোট, ছোট শব্দগুলো পাসওয়ার্ডে ব্যবহার করেন। কিন্তু এই ধরনের পাসওয়ার্ড ব্যবহার করাটা সম্পূর্ণ ঝুঁকিপূর্ণ। তাই এগুলো ব্যবহার করা উচিত না।

তাহলে কি ধরনের শব্দ ব্যবহার করা উচিত- যেমন ধরুন- ghijkr, bvtyui, xyzbdpq ইত্যাদি এইরকম জাতীয় পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা উচিত।

ডিজিট  বা নাম্বার ব্যবহার করা যেতে পারে:

পাসওয়ার্ড ব্যবহারের ক্ষেত্রে নাম্বার ব্যবহার করে। তাই অক্ষরের পাশাপাশি সুকৌশলে নাম্বার বসিয়ে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করতে পারেন। এতে করে আপনার পাসওয়ার্ডটি খুব শক্তিশালি হয়ে উঠবে। একটি উদাহরণ দেওয়া হল- xygh5498

একই পাসওয়ার্ড দীর্ঘদিন ধরে ব্যবহার নয়:

একই পাসওয়ার্ড অনেকদিন ধরে ব্যবহৃত করাটা একদম অনুচিত। তাই, নির্দিষ্ট সময় পরপর পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করাটা উচিৎ।

আপার কেস বা ক্যাপিটাল লেটার ব্যবহারে বৈচিত্র্য:

পাসওয়ার্ড দেওয়ার সময় মাঝেমাঝে ক্যাপিটাল লেটার ব্যবহার করা হলে জিনিসটা আন্দাজ করা বেশ জটিল হয়ে যায়। তাই, অন্যান্য ক্যারেক্টারের ফাঁকে-ফাঁকে দু-চারটা আপার কেস বা ক্যাপিটাল লেটার বসিয়ে নিজের পাসওয়ার্ডকে আরও স্বতন্ত্র করে তোলো।

যেমন: veru6598RCHH

একই পাসওয়ার্ড একাধিক অ্যাকাউন্টে ব্যবহার করাটা অনুচিত:

অনেকেই মনেকরেন একই পাসওয়ার্ড ই-মেইল, ফেসবুক, টুইটার, ওয়ার্ডপ্রেস অ্যাকাউন্টে ব্যবহার করলে মনে থাকবে। কিন্তু এই ধরনের পাসওয়ার্ডটি খুবই ঝুঁকিপূর্ণ। তাই প্রত্যেকটির জন্য আলাদা-আলাদা পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা উচিৎ।আলাদা-আলাদা পাসওয়ার্ড ব্যবহার করলে ঝুঁকি কম থাকে।

পাসওয়ার্ড লিখে রাখাটা অনিরাপদ:

আমাদের সবথেকে বড় বোকামি হচ্ছে পাসওয়ার্ড কোথাও লিখে রাখা।অনেকেই আছে যারা পাসওয়ার্ড লিখে মানিব্যাগে রেখে দেয় এতে করে যে কোন লোকে হাতে কাগজটি চলে যেতে পারে।আবার মোবাইল, ল্যাপটপ ইত্যাদিতে পাসওয়ার্ড সেভ করে রাখে কিন্তু এটি যে কতবড় বোকামি তা নিজেই জানেনা। তাই এগুলো সবসময় লক্ষকরুন।

জন্মসাল দিয়ে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা:

জন্মসাল দিয়ে পাসওয়ার্ড ব্যবহার করাটা এতই বোকামি যে যখন তখন আইডিটি হ্যাক হওয়ার সম্ভাবনা থেকে যায়। কারনিটি হচ্ছে সার্টিফিকেটে আপনার জন্মসাল দেওয়া থাকে, ভোটার আইডি কার্ডে জন্মসাল দেওয়া থাকে। তাই যে কেউ আপনার জন্মসাল বেরকরে আইডিটি হ্যাক করতে পারে।

নিজে শতর্কহোন, অন্যকে শতর্ক করে দিন।

Advertisements

Add comment

Your Header Sidebar area is currently empty. Hurry up and add some widgets.